মঙ্গলবার, জুন ১৮, ২০২৪

বিএনপির নেতাদের আই ইনস্টিটিউটে ১০ টাকায় চোখ দেখানোর পরামর্শ দিলেন শেখ হাসিনা

সিসিএন রিপোর্ট:

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, দেশের সবচেয়ে সুন্দর ও দৃষ্টিনন্দন রেল স্টেশন হচ্ছে
কক্সবাজারের আইকনিক রেলস্টেশন । এটি দক্ষিণ এশিয়ার একটি আকর্ষণীয় রেলস্টেশন। দেশি বিদেশি পর্যটক এই ট্রেন স্টেশন দেখে আকর্ষিত হবেন।

ট্রেন যোগে আগামীতে সুন্দরবন থেকে কক্সবাজার, পঞ্চগড় থেকে কক্সবাজার, রাজশাহী থেকে কক্সবাজার, গোপালগঞ্জ থেকে কক্সবাজার আসা যাবে। পুরো দেশ সংযোগ হবে কক্সবাজারের সাথে। এশিয়ান রেল ওয়ের সাথে সংযোগ হবে বাংলাদেশ। আর এতে এশিয়ার সাথেও সংযোগ হবে কক্সবাজারের। বিশ্বের বিরল হচ্ছে বালুকাময় কক্সবাজার সমুদ্র সৈকত। ছোট বেলায় বছরের শীতকালে একবার বাবা কক্সবাজারে নিয়ে আসতো ভ্রমণে। সেই স্মৃতিময় কক্সবাজারে গত ১৫ বছরে উন্নয়নে আমূল পরিবর্তন করা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী দোহাজারী-কক্সবাজার রেলপথ এবং একইসঙ্গে কক্সবাজারের ঝিলংজায় আইকনিক রেলস্টেশন উদ্বোধনকালে সুধী সমাবেশে এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, আমাদের দেশ আমরা চিনি, দেশের জন্য কি করতে হবে তাও জানি। বাইরের থেকে আমাদের পরামর্শ দেবে,সেটা হতে পারে না, সেট মানা যায় না।
তিনি বিএনপির নেতার সরকারের উন্নয়ন দেখে না ইঙ্গিত করে বলেন, যারা উন্নয়ন দেখে না, তারা চোখ থাকিতে অন্ধ। তিনি বিএনপির নেতাদের ১০ টাকা বাংলাদেশ আই ইনস্টিটিউটে চোখ দেখানোর পরামর্শ দেন। বিএনপির শুধু চোখ অন্ধ হয়নি, মনও অন্ধ হয়ে গেছে। তাই তারা দেশের মানুষকে পুড়িয়ে মারে। দেশে অরাজকতার মাধ্যমে বীভৎস পরিবেশ সৃষ্টি করছে।

শনিবার ১১ নভেম্বর বেলা সাড়ে ১১টায় সুধী সমাবেশে বক্তব্য শেষে ট্রেনের টিকিট কাটেন এবং হুইসেল বাজিয়ে এবং পতাকা উড়িয়ে ট্রেন লাইনের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী । এরপরে তিনি রেলে চড়ে কক্সবাজার থেকে রামু পৌঁছান। তাঁর সাথে সহযাত্রী ছিলেন বিভিন্ন শ্রেণি পেশার ৩০০ মানুষ।

চট্টগ্রামের দোহাজারী থেকে রামু হয়ে কক্সবাজার শহর পর্যন্ত নবনির্মিত ১০২ কিলোমিটার দীর্ঘ সিঙ্গেল লাইন ডুয়েল গেজ এই রেলপথ।

অগ্রাধিকার প্রকল্পটি উদ্বোধনের মাধ্যমে ১৩ বছরের প্রচেষ্টা সফল হলো। এখন কক্সবাজার পর্যন্ত চালু হবে রেলপথ। এর ফলে রাজধানী ঢাকা ও বন্দরশহর চট্টগ্রাম থেকে ট্রেনে চড়ে সমুদ্র সৈকতের শহর কক্সবাজারে যাওয়া যাবে।

এর আগে প্রধানমন্ত্রী ২০২২ সালের ৭ ডিসেম্বর কক্সবাজার এসেছিলেন। সরকারপ্রধানের আন্তরিক প্রয়াসে সাড়ে ৩ লাখ কোটি টাকার ৯৮টি প্রকল্প বাস্তবায়নের মধ্য দিয়ে বদলে যাচ্ছে দেশের প্রধান পর্যটন আকর্ষণ কক্সবাজার।

আরও

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ খবর